অভিনব পদ্ধতিতে ছোট একটি খালের সামনে গর্ত করার পরেই ঘটল অবিশ্বাস্য কান্ড! ঝাকে ঝাকে আসতে থাকল শিং মাছের ঝাক। রাতারাতি ভাগ্য বদলে গেল ভাগ্য! তুমুল ভাইরাল ভিডিও

নিজস্ব প্রতিবেদন:বাঙালিরা মাছ খেতে শুধু পছন্দ করে তা নয় মাছের বিভিন্ন ধরনের রেসিপি তৈরি করতে এবং মাছ ধরতে ও তারা খুব আনন্দ পায়। এবং অনেকে এ ধরনের মাছের রেসিপি এবং মাছ ধরার পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছে। মূলত আমরা ধরে তাদেরকে জেলে বলে থাকি।

কিন্তু আমাদের দেশের এমন অনেক যুবক-যুবতী আছে যারা মাছ ধরে আনন্দ পায়। তারা বর্ষাকালে মাছ ধরার জন্য ব্যাকুল হয়ে ওঠে।আমরা অনেকেই মাছ ধরতে খুব পছন্দ করি। বাঙ্গালীদের মধ্যে অনেকেপেশা আবার অনেকের নেশাও বটে। মানুষ জীবনধারণের জন্য ভিন্ন ধরনের পেশায় নিয়োজিত থাকে।

গ্রামে মানুষের পেশার মধ্যে অন্যতম একটি পেশা হচ্ছে মাছ ধরা। আবার অনেকে শখের বসেও মাছ ধরে থাকে।প্রাচীন কাল থেকেই মানুষ খাদ্য ও আমিষের চাহিদা পূরণ করতে অন্যতম পরিপূরক হিসেবে মাছ শিকার করে খেয়ে আসছে। মাছ অতি সহজ লভ্য ও পুষ্টির এমন একটি ভান্ডার।

যার দ্বারা একজন মানব শরীরের পুষ্টি চাহিদা পূরণ করা যায়। মাছের বিভিন্ন পুষ্টি উপাদান যা বেড়ে উঠতে অনেক সাহায্য করে। অনেকের কাছে মাছ শিকার করা একটি নেশার মতো। মাছ শিকার করা যেমন মজার তেমনি এর মাধ্যমে পারিবারিক পুষ্টি চাহিদা সহ রোজগার ও করা যায়। মাছ ধরা এক ধরনের প্রতিভা।

সকলেই মাছ শিকার করতে পারে না। সময়ের ব্যবধানে ও উন্নত প্রযুক্তির মাধ্যমে মাছ শিকার সহজ হলেও। গ্রামীণ ও প্রাচীন পদ্ধতি গুলো মাছ শিকার করার কিছু সহজ মাধ্যম ।গ্রাম্য পদ্ধতিতে মাছ শিকার করতে এক ধরনের ধৈর্যের পরীক্ষা হয়। অঞ্চলভেদে বিভিন্ন জায়গায় মাছ শিকার করার একক পদ্ধতি বিদ্যমান।

সোশ্যাল মিডিয়ার কারণে আমরা বিভিন্ন অঞ্চলের বিভিন্ন মাছ ধরা ও তাদের ঐতিহ্য সহকারে মাছ ধরা দেখতে পারি। এই সোশ্যাল মিডিয়া আমাদের অন্যদের প্রাচীন পন্থা ও তাদের অবস্থান সম্পর্কে জানতে সাহায্য করে। শুরুর দিক সোশ্যাল মিডিয়া শুধু মাত্র যোগাযোগের মাধ্যম হলেও ।

বর্তমানে নানান জনের নানান ভিডিও আপলোডের মাধ্যমে সহজেই আমরা জানতে পারি ।আজকের এই ভিডিওটিতে একটি ছেলের মাছ ধরার চিত্র ধারণ করা হয়েছে। যা নেট দুনিয়ায় প্রচুর পরিমাণে ভাইরাল হয়েছে।একটি ছেলে একটি ব্যাগ নিয়ে হাওরে যায় মাছ ধরার জন্য।

সেখানে কিছু উঁচু স্থানে অল্প পরিমাণে পানি আটকে থাকে। এবং সে গিয়ে দেখতে পারি অল্প পরিমাণে পানি গুলোর মধ্যে বিভিন্ন দেশীয় মাছ আটকে আছে।সে বুদ্ধি করে সেই নদীটির পাশে একটি গর্ত খুঁড়ে নেই এবং সে কিছুক্ষণ পরে এসে দেখে খালের বিভিন্ন প্রজাতির মাছ গর্তে প্রবেশ করেছে সে একটি একটি করে মাছগুলো ধরে তার ব্যাগে করে নিয়ে যায়।

মাছগুলো সাধারণত বন্যার পানির সাথে উপরে উঠে যায়।বন্যার সময় যখন আস্তে আস্তে পানি উঁচু স্থানে উঠে যায় তখন পানির সাথে বিভিন্ন মাছও উপরে উঠে যায়। এবং বৃষ্টি কমলে যখন বন্যার পানি আস্তে আস্তে নিচে যেতে শুরু করে তখন কিছু পানি রাস্তা না পেয়ে উঁচু স্থানেই আটকে থাকে।

সেই প্রাণীর সাথে কিছু মাছ রাস্তা না পেয়ে নিচে নামতে না পেরে উপরে আটকে পড়ে। এবং সেই সময় খুব সহজেই অল্প পানিতে এই মাছগুলো ধরা যায়। শুধুমাত্র আমরা যারা এলাকাতে বসবাস করে তারা মাঝেমধ্যে বন্যা হলে এই পদ্ধতিতে মাছ ধরতে পারি।

যারা মাছ ধরতে গিয়ে ব্যর্থ হন তারা এই ধরনের ভিডিও দেখলে আইডিয়া পেতে পারেন আপনাদের জন্য এই ধরনের ভিডিও খুবই উপকার ভিডিও গুলো দেখতে সত্যি অসাধারণ লাগে আপনারা যদি আমাদের এই মাছ ধরার ভাইরাল ভিডিওটি দেখতে চান তাহলে নিচের লিংকে ক্লিক করতে পারেন।

আরো পড়ুন

লোহা ও পাইপ দিয়ে অভিনব কৌশলে তৈরি করল ঘুঘু ধরার ফাঁদ! সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন: :প্রতিটি প্রানীই শিকার করার জন্য তার নিজস্ব কায়দা ব্যবহার করে। বাস্তুসংস্হানের প্রতিটি প্রানীকে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *