চেহারায় তারুণ্য ধরে রাখতে জীবনযাত্রার এই পরিবর্তনগুলো আনুন, এতে আপনাকে দেখাবে ১০ বছর কম বয়সী

ভালো থাকার জন্য সুস্থ ও সুন্দর জীবনযাপন করা দরকার। আর সুস্থ জীবনযাপন ধরে রাখলেই দীর্ঘায়িত হবে জীবন। তবে এজন্য কয়েকটি বিষয় অবশ্যই মেনে চলতে হবে। প্রতিদিনের রুটিনে এমন কিছু বিষয় অন্তর্ভুক্ত করতে হবে যা চেহারায় বয়সের ছাপ পড়তে দেয় না।

যাদের বয়স ২০ থেকে ৩০ তাদের ক্ষেত্রে বিষয়গুলো মেনে চলা সহজ হবে।

ডায়েটে স্বাস্থ্যকর খাবার রাখা: পুষ্টিবিদরা ডায়েটে পুষ্টিসমৃদ্ধ খাবার রাখার প্রতি জোর দিয়েছেন। প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় শিম, শস্য ও বাদাম রাখতে হবে। এ খাবারগুলোতে যথেষ্ঠ পরিমাণে পুষ্টি রয়েছে যা দীর্ঘস্থায়ী রোগ দূরে রেখে দীর্ঘজীবি করে।

লাল মাংস কম খাওয়া: রেড মিট ও প্রসেসড মিট খাওয়ার পরিমাণ কমিয়ে দিন। লাল মাংস প্রচুর পরিমাণে কোলেস্টেরল এবং অস্বাস্থ্যকর ফ্যাট থাকে যা স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। আবার পেটের ক্যান্সারের কারণ লাল মাংস।

সূর্যের আলো: সূর্যের আলো ভিটামিন ডির অন্যতম উৎস শুধু তাই না এই আলো ক্লান্তি কমিয়ে আপনার মন-মেজাজ ভালো রাখতে সাহায্য করে। এজন্য প্রতিদিন কিছু সময়ের জন্য হলেও সূর্যের আলোতে দাঁড়িয়ে থাকুন।

১৩ ঘণ্টা বা সারারাত উপোস থাকা: সারারাত উপোস থাকলে আপনার শরীরের নিরাময় প্রক্রিয়া ভালোভাবে চলে। এর ফলে শরীরের অঙ্গ প্রত্যঙ্গগুলো ভালোভাবে কাজ করতে পারে। এছাড়া উপোস থাকা ক্রনিক ডিজিজের সম্ভাবনা অনেকটা কমায়।

প্রতিদিন ১০ হাজার কদম হাঁটা: শরীর সুস্থ রাখতে হাঁটার বিকল্প নেই। আপনি যদি জিম বা ওয়ার্কআউট করতে পছন্দ না করেন তবে প্রতিদিন কমপক্ষে ১০ হাজার স্টেপ হাটার চেষ্টা করুন। তবে প্রতিদিন যেনো হাঁটা হয় সে বিষয়টি খেয়াল রাখুন।

চাপ কম নেওয়া: ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে সবার সুবিধা-অসুবিধা থাকবে। তবে চেষ্টা করুন চাপমুক্ত থাকতে। প্রয়োজনে মেডিটেশন করুন, বই পড়ুন। এতে করে মন মেজাজ শান্ত থাকবে।

সূত্র: দ্যা টাইমস অব ইন্ডিয়া

আরো পড়ুন

পাত্র খুঁজে পাচ্ছেন না যে গ্রামের সুন্দরী নারীরা

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সংস্কৃতিও ভিন্ন। একেক দেশের রীতি অন্য দেশের কাছে অদ্ভুত বা উদ্ভট বলে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *