বাড়িতেই আটা দিয়ে তৈরি করুন সুস্বাদু এবং তুলতুলে নান রুটি। রইল ভিডিও সহ বিস্তারিত প্রতিবেদন।

নিজস্ব প্রতিবেদন: আমাদের দেশে বিভিন্ন রেস্টুরেন্টে নান রুটি সচরাচর পাওয়া গেলেও বাড়িতে তেমন একটা বানিয়ে খাওয়া হয়না। কেননা আমরা বেশিরভাগ মানুষই জানিনা কিভাবে নান রুটি তৈরি করতে হয়। আমরা সচরাচর বিভিন্ন খাবারের তৈরি করার রেসিপি না জানার কারণে তা বাড়িতে বানিয়ে খাওয়া হয়না। তবে বর্তমানে ইউটিউব কিংবা বিভিন্ন গণমাধ্যমে বিভিন্ন খাবারের রেসিপি এবং তৈরি করার পদ্ধতি সহজেই আমরা পেয়ে থাকি।

এগুলোর মাধ্যমেই আমরা বিভিন্ন খাবার বাড়িতেই তৈরি করে উপভোগ করতে পারি। আজকের এই ভিডিওতে আমরা কিভাবে ঘরে বসে খুব সহজে এবং অল্প উপকরণে নান রুটি তৈরি তৈরি করা যায় তার রেসিপি সম্পর্কে জানব। আমরাই নানরুটি সচরাচর রেস্টুরেন্ট কিংবা বিভিন্ন হোটেলে খেয়ে থাকি।

তবে যারা আমরা বাইরের খাবার খেতে পছন্দ করিনা তাদের এই রেসিপি গুলো কেমন খাওয়া হয়না। আর বিভিন্ন রেস্টুরেন্টে খাবার গুলোর মধ্যে বিভিন্ন রকম ভেজাল উপকরণ ব্যবহার করা হয়। যা মানবদেহের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকারক। তাই আমরা এই সুস্বাদু খাবার গুলো বাহিনীর না খেয়ে নিজে তৈরি করে ঘরে খাওয়ার চেষ্টা করব।

উপকরণ সমূহঃ আটা, লবণ ,ইস্ট ,চিনি ,রান্নার তেল ,দুধ ,বাটার ,ধনিয়া পাতা। প্রণালীঃ সবার প্রথমে আমরা একটি আটার মিশ্রণ তৈরি করে নেব। 1, 6 থেকে 7 টা রুটি তৈরি করার জন্য প্রথমে একটি পাত্রে 3 কাপ পরিমাণ আটা নিয়ে নেব। 2, তারপর এরমধ্যে প্রয়োজন মতো স্বাদ অনুযায়ী লবণ নিয়ে নেব।3, 2 চা চামচ পরিমাণ ইস্ট। 3, 1 টেবিল চামচ পরিমাণ চিনি। 4, 2 টেবিল চামচ পরিমাণ রান্নার সাদা তেল।

তারপর মিশ্রনগুলো ভালো করে হাত দিয়ে নেড়ে চেড়ে মিক্স করে নিতে হবে। তারপরে মিশ্রণটি কুসুম গরম দুধ দিয়ে ডো তৈরি করে নিতে হবে। আপনারা চাইলে দুধের পরিবর্তে পানি দিয়ে তৈরি করতে পারেন। তবে রুটিটি সুস্বাদু করার জন্য দুধ দিয়ে তৈরি করলেই ভালো হয়। অল্প অল্প পরিমাণে দুধ ঢেলে ডোটি তৈরি করে নিতে হবে। এক্ষেত্রে একবারে বেশি দুধ ঢেলে দিলে মিশ্রণটি পাতলা হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

তারপর মিশ্রণটি একঘন্টা পরিমাণ সময় রেপিং পেপার দিয়ে ঢেকে রাখলে রুটি নরম তুলতুলে হতে সাহায্য করে এবং মিশ্রণটি ফুলে বড় হয়ে যাবে। তারপর মিশ্রণটি রুটি রাখার কতটুকু রাখবেন তার উপর নির্ভর করে সমান ভাগে ভাগ করে নিন। তারপর রুটিগুলো বেলে নিতে হবে। তারপর অল্প জ্বালে তেল ছাড়া রুটিগুলো করাইয়ের মধ্যে এপিঠ ওপিঠ করে ছেকে নিতে হবে।

এক্ষেত্রে রুটিগুলো সুন্দর করে ফুলে উঠবে। আপনারা চাইলে রুটিগুলো ছেকার সময় এপিঠ ওপিঠ করে বাটার লাগিয়ে নিতে পারেন। এতে খাবারের স্বাদ বৃদ্ধি করে। আপনারা চাইলে এরমধ্যে ধনিয়া পাতা ব্যবহার করতে পারেন। তবে যারা ধনিয়া পাতার গন্ধ সহ্য করতে পারেন না তারা এটা বাদ দিলেও পারেন।

বিস্তারিত ভিডিওতে দেখুনঃ

আরো পড়ুন

এই ফর্মূলায় দোকানের মত বাড়িতেই চিকেন মোমো তৈরি করুন, হবে দারুন স্বাদ যা বাড়ির সবাই পছন্দ করবে, A-Z রেসিপি।

নিজস্ব প্রতিবেদন: শীতে দিনে নতুন নতুন খাবারের স্বাদ পেতে ভালোই লাগে। আর খাবারটি যদি হয় …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *