পুকুরের মধ্যে পরে আটকে গেল বড় আকারের সা’প, সা’পকে উদ্ধার করতে গিয়ে, অল্পের জন্য র’ক্ষা পেলো যুবক, তুমুল ভাইরাল সেই ভিডিও!!

নিজস্ব প্রতিবেদন: আমরা ছোটবেলা থেকে প্রায় নাক নাগিনের গল্প শুনে থাকি। আর ভারতীয় মহাদেশের কোবরা সাপ কে নাগ-নাগিন হিসেবে আখ্যায়িত করা হয়। গ্রামের দিকে আমরা প্রায়শই কোবরা সাপের সন্ধান পাই। কোবরা সাপ জনসম্মুখে হঠাৎই চলে আসে।

প্লের যেকোনো পশুপাখি জনসমক্ষে চলে আসলে তখন তাদের রেস্কিউ করার জন্য সরকারি এবং বেসরকারি ভাবে বিভিন্ন সংস্থা কাজ করে। জনসম্মুখে চলে আসা সকল কোন প্রাণীর খোঁজ পেলে তারা সেই প্রাণীকে নিষ্ক্রিয় করার জন্য সেই জায়গায় চলে যায়। অতঃপর তারা তা প্রাণীগুলোকে রেস্কিউ করার পর তাদেরকে জঙ্গলে ছেড়ে দেয়া হয়।

ভারতীয় উপমহাদেশে প্রায়শই শোনা যায় হাতির দল বা মহিষের দল বা সাপ গ্রামে চলে আসে। বিশেষ করে সাপকে সবাই ভয় পায়। কারণ সাপ একবার কামড়ে দিলে তার মৃত্যু অবধারিত। ঠিক তেমনই ভারতীয় এক প্রদেশের গ্রামের তৈরিকৃত পুকুরে দুটি কোবরা সাপ দেখা যায়।

কোবরা সাপ গুলো একটি ছিল পুরুষ এবং অন্যটি ছিল মহিলা সাপ। তাদেরকে দেখে গ্রামের মানুষ আতঙ্কিত হয়ে পড়ে। এরপর এই সাপগুলোকে ওই পুকুর থেকে সরানোর জন্য রেস্কিউ করার দলকে ডাকা হয়। তারা এসে সাপ দুটোকে পানি থেকে তুলে বস্তাবন্দি করে।

যদিও সাপ দুটো খুবই ভয়ঙ্কর ছিল। কারণ তারা কেউই রেসকিউ করার দলের সদস্যদের কাছে আপস করতে চায়নি। রাগে ফুলে-ফেঁপে তাদেরকে বারবার ছোবল মারতে যাচ্ছিল। তাদেরকে বস্তাবন্দি করাটা ছিল অনেক কষ্টসাধ্য কাজ। রেসকিউ দলের টিমের সদস্যরা পানিতে নেমে তাদেরকে খুব সাবধানে। বারবার সাপ দুটো রেস্কিউ করার দলকে আক্রমণ করতে চায়। কিন্তু সাপ গুলো কোন ভাবে তাদের সাথে পেরে উঠতে পারছিল না

আমাদের প্রকৃতিতে যত প্রকার সাপ রয়েছে তার মধ্যে কোবরা সাপ হচ্ছে অন্যতম বিষধর সাপ। কোবরা সাপ সাধারণত কালো রঙের হয়ে থাকে। তারা গ্রামে ঢুকে পড়ে গ্রামের ঘরের বিভিন্ন কোনায় এবং কি বাথরুমের পাইতে বসে থাকে। এইসব দেখে সাধারণ মানুষ ভীষণ ভয় পায়। আর এই ধরনের বিভিন্ন দুর্ধর্ষ কর সাহেব এবং অন্যান্য প্রাণী নিষ্ক্রিয় করার জন্য সরকারিভাবে সরকারিভাবে বিভিন্ন কাজ করে।

আমরা প্রায়শই টেলিভিশনে বিভিন্ন ছবিতে অথবা নাটকের মাধ্যমে নাগ নাগিনীর গল্প। যদিও এই গল্পগুলো কাল্পনিক তবুও আমাদেরকে গল্পগুলো ভীষণ আনন্দ দেয়। ঠিক তেমনি এই হিসাব রেস্কিউ করার ভিডিও গুলো মানুষের মনে এক অনন্য আনন্দ দেয়।

বর্তমানে নেট দুনিয়াতে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ধরনের ভিডিও ভাইরাল হয়। ভাইরাল হওয়া ভিডিও গুলোর মধ্যে পশু পাখির ভিডিও গুলো রয়েছে। এই ভিডিও গুলো ছোট থেকে বড় সবাই দেখে অনেক কিছু শিখতে পারে এবং আনন্দ পায়। বিশেষ করে এ সাপ ধরার ভিডিও গুলো যেহেতু একটি ভয়ঙ্কর এবং দুর্ধর্ষ কর হয় তাই এই ভিডিওগুলো নেটদুনিয়ায় তুমুল পরিমাণে ভাইরাল হতে থাকে।

তবে যারা রেস্কিউ করে তাদের দলকে একটু সাবধানতার সাথে কাজ করতে হয়। যদিও তাদের বেশ যাতে না ধরে সে জন্য ইনজেকশন পুশ করা থাকে তবুও তাদের সাবধানতা অবলম্বন করে কাজ করতে হয়। সাপ রেস্কিউ করার দলগুলো সাধারণত বিভিন্ন স্থান থেকে সাপ নিয়ে এসে তাদেরকে সাবধানতার সাথে তাদের জঙ্গলে ফিরিয়ে দেওয়া হয়।

তাদেরকে আটক আটকে রেখে বা তাদেরকে মেরে ফেলা হয় না। কারণ সকল প্রাণী হচ্ছে দেশের প্রধান সম্পদ। যে দেশে পানি নেই সে দেশে প্রাণ থাকেনা। আপনারা যদি সাপ্রেস কেউ করার এই দুর্ধর্ষ ভিডিওটি দেখতে চান তাহলে নিচের লিংকে ক্লিক করতে পারেন। এই ভিডিওটি অনেক বিনোদন এবং অনেক ভয়ংকর। আর এই ভিডিওটি নেটদুনিয়ায় টুল পরিমাণে ভাইরাল হয়েছে।

বিস্তারিত ভিডিওতে দেখুনঃ

আরো পড়ুন

নদী পাড় হওয়ার সময় বিশাল বড় বা,ঘকে ফাদে পেয়ে আ,ক্রমন করল কুমি,রের দল, মূহুর্তেই ছিড়ে ফেলল বা,ঘকে, নদীর জল রক্তে লাল হয়ে গেল, তুমুল ভাইরাল ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন: এই পৃথিবীতে বহু জাতীয় পশু পাখি রয়েছে। আরে পশুপাখিরা তাদের জীবন পরিচালনার জন্য ...